Print
প্রচ্ছদ » জাতীয়

‘দয়া করেমেয়র আনিসুল হকের মৃত্যুর গুজব ছড়াবেন না’




ঢাকা, ০৯ সেপ্টেম্বর ২০১৭:

ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশনের মেয়র আনিসুল হকের মৃত্যুর গুজব না ছড়াতে আহ্বান করেছেন তাঁর মালিকানাধীন বেসরকারি টেলিভিশন নাগরিক টিভির সিইও আব্দুর নূর তুষার।


আনিসুল হক গত ২৯ জুলাই ব্যক্তিগত সফরে সপরিবারে লন্ডনে যান। সেখানে অসুস্থ হয়ে পড়লে ১৩ আগস্ট তাকে হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। চিকিৎসকেরা জানিয়েছেন, তিনি মস্তিষ্কের রক্তনালীর প্রদাহজনিত রোগে আক্রান্ত হয়েছেন। এরপর থেকে স্বাভাবিকভাবে ঘুম থেকে জাগিয়ে তোলার চেষ্টা করছেন তাঁরা।


এদিকে শনিবার দুপুর থেকে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে মেয়র আনিসুল হক মারা গেছেন বলে গুজব ছড়ানো হয়। এরই পরিপ্রেক্ষিতে ফেসবুকে স্ট্যাটাস দেন আব্দুর নূর তুষার। তিনি বলেন, ‘আল্লাহর ওয়াস্তে থামেন! আমি, রুবানা হক, আনিস ভাইয়ের ছেলে মেয়েরা সবাই পালাক্রমে তাকে প্রতিদিন হাসপাতালে দেখতে যাই! এক মিনিট আগে আমি রুবানা হকের সাথে কথা বলেছি! তিনি তাকে হাসপাতালে দেখে ডাক্তারদের সাথে কথা বলে এসেছেন।’


তুষার লিখেছেন, ‘আনিসুল হকের অসুস্থতার নাম সেরিব্রাল ভ্যাস্কুলিটিস, তিনি দীর্ঘ সময় আইসিইউতে ঘুমে ছিলেন, এখন ধীরে ধীরে তাকে ওষুধ কমিয়ে এনে ডাক্তাররা পরবর্তী ধাপের চিকিৎসা দিচ্ছেন। আপনারা এতো হৃদয়হীন যে প্রতিদিন তার মৃত্যুর গুজব ছড়াচ্ছেন।’


খ্যাতিমান এই উপস্থাপক লিখেছেন, ‘কেউ অমর নন! কিন্তু কারো চিকিৎসা চলাকালীন তার ব্যাপারে কিছূ না জেনে, নিশ্চিত না হয়ে তার নাম দিয়ে গুজব ছড়িয়ে আপনারা তার আত্মীয় পরিজনদের, যেভাবে দুঃখ দিচ্ছেন, সেটা বোঝার ক্ষমতা আপনাদের আল্লাহ দেন নাই। আপনারা কি আশা করেন যে আমরা এখন তার হাসপাতাল থেকে প্রতিমুহূর্তে লাইভ সম্প্রচার করবো?’


তুষার লিখেছেন, ‘এতটা বুদ্ধি বিবেচনাহীন হয়েছেন কেউ কেউ, যে এটাও বোঝার ক্ষমতা নাই আপনাদের যে, এখানে হাসপাতালগুলো অন্যরকম।


এখানে ডাক্তার ও রোগী ছাড়া আত্মীয়দেরও অনুমতি নিয়ে রোগীর কাছে যেতে হয়। ইনফেকশন কন্ট্রোল করার জন্য তাকে চাইলেই দেখা যায় না। আমি নিশ্চিত করছি যে আনিস ভাই এখনো চিকিৎসাধীন আছেন, দোআ করতে পারলে করেন, গুজব ছড়াবেন না।’


মেয়রের একান্ত সচিব আবরাউল হাছান মজুমদার ঢাকাটাইমসকে বলেন, ‘আজ বাংলাদেশ সময় দেড়টায় মেয়র মহোদয়কে স্বাভাবিকভাবে ঘুম থেকে জাগিয়ে তোলার চেষ্টা করা হচ্ছে। সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে যে গুজব উঠেছে, তার কোনো ভিত্তি নেই।’





শেয়ারনিউজ/ডেস্ক